ইন্দোনেশিয়ায় শক্তিশালী ভূমিকম্প

ইন্দোনেশিয়ার দক্ষিণ-পূর্ব দ্বীপ লমবকে শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে। ভূমিকম্পে মালোইশিয়ার নাগরিক সহ অন্তত ১০ জন নিহত  এবং  প্রায় ৪০ জন আহত হয়েছে । ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বেশ কয়েকটি বাড়ি। আশঙ্কা করা হচ্ছে হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। কারণ এখনও সব তথ্য সংগ্রহ করা হয়নি।

 

২৯ জুলাই ২০১৭ রবিবার সকালে ইন্দোনেশিয়ার পর্যটন দ্বীপ লমবকে ভূমিকম্পটি হানা দেয়। দ্বীপটি সারা বিশ্বের পর্যটকদের নিকট  আকর্ষনীয় এবং বালি থেকে ৪০ কিমি (২৫ মাইল) পূর্বে অবস্থিত।

মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ কেন্দ্র জানায়, স্থানীয় সময় আজ সকাল ৬টা ৪৭ মিনিটে ভূমিকম্পনটি অনুভূত হয়। রিখটার স্কেলে এর মাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৪। উৎপত্তিস্থল ছিল সাত কিলোমিটার । ভূমিকম্পটি ১০ সেকেন্ড স্থায়ী ছিল।

 

ভূকম্পনে লোকজন ভীত হয়ে ঘরবাড়ি ও হোটেল ছেড়ে বাইরে বের হয়ে  খোলা জায়গায় আশ্রয় নেয়।

ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপিকে এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, ভূমিকম্প খুব শক্তিশালী ছিল। আমাদের বাড়ির সবাই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছিল। আমরা সবাই বাইরে ছুটে যাই। আমাদের প্রতিবেশী সবাই ঘর থেকে বাইরে আসে। এসময় হঠাৎ করে বিদ্যুৎও চলে যায়।

ইন্দোনেশিয়ান সংস্থা বিএমকেজি জানায়, ভূমিকম্পের ফলে  রিজনি মাউন্টে ভূমিধস সৃষ্টি হয়েছে যার কারনে  রিজানীর হাইকিং পথ বন্ধ হয়ে গিয়েছে। পশ্চিমা পর্যটকদের কাছে রিজানীর হাইকিং পথটা ব্যাপক জনপ্রিয় একটি জায়গা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *