মেঘনা নদীতে যবুকের মাথাবিহীন গলিত লাশ

নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ায় নিখোঁজের তিনদিন পর আরিফ উদ্দিন (৩৫) নামে এক যুবকের মাথাবিহীন অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার বেলা ১১টার দিকে উপজেলার অলি বাজার এলাকায় মেঘনা নদী থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। নিহত আরিফসহ অপহৃত চারজন কোস্টগার্ডের সোর্স হিসেবে পরিচিত।

পুলিশ জানায়, নিহত আরিফ ডালচরের জামাল উদ্দিনের ছেলে। গত ২৯ মে মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে তিনিসহ মোট চারজন নিখোঁজ হন। অপর তিনজন এখনও নিখোঁজ রয়েছে।তারা হলেন- বয়ারচর বারো দাগের মৃত মোশারফ হোসেনের ছেলে মো. দিদার (২৮), কিল্লার বাজারের মো. খোকনের ছেলে ফয়সাল (২৮) ও বয়ারচরের মাইন উদ্দিন বাজার এলাকার জাবের মাঝির ছেলে রহমান (১৯)।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুজামান শিকদার আরিফের মরদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, নিখোঁজ বা অপহরণ হওয়ার বিষয়ে আগে পুলিশকে কেউ অবহিত করেনি। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।কোস্টগার্ডের হাতিয়া স্টেশনের কমান্ডার লে. শাকিল উদ্ধারকৃত মরদেহসহ নিখোঁজ অপর তিনজনকে তাদের সরাসরি সোর্স বলে স্বীকার না করলেও তারা বিভিন্ন সময় কোস্টগার্ডকে বিভিন্ন তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করতেন বলে জানান।

এদিকে নিহত আরিফের ছোট ভাই তৌফিক জানান, প্রায় ৮-৯ মাস আগে হাতিয়ার শীর্ষ ডাকাত খোকনকে আটক করতে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে সহযোগিতা করে তার ভাইসহ অন্যরা। আরিফ ও অপর নিখোঁজরা কোস্টগার্ডসহ আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সোর্স হিসেবে কাজ করে আসছে। ফলে ক্ষিপ্ত হয়ে খোকনের ভাই ফোকরা ডাকাত অপহরণের পর তার ভাই আরিফকে হত্যা করে। তার দাবি- নিখোঁজ অপর তিনজকেও হত্যা করা হয়েছে। তবে তাদের মরদেহ এখনও পাওয়া যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *