রোহিঙ্গা ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারের সঙ্গে চুক্তি জাতিসংঘের

বাংলাদেশ থেকে সাত লাখ রোহিঙ্গাকে রাখাইনে ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারের সঙ্গে চুক্তি করেছে জাতিসংঘ।

বুধবার জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর ও উন্নয়ন সংস্থা ইউএনডিপির সঙ্গে মিয়ানমার সরকারের সঙ্গে এ সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

বার্তা সংস্থা এপি জানিয়েছে, এই সমঝোতা চুক্তির মাধ্যমে ‘সহযোগিতামূলক একটি ফ্রেমওয়ার্ক’ তৈরি করা হয়েছে যার উদ্দেশ্য হচ্ছে ‘রোহিঙ্গা শরণার্থীদের স্বেচ্ছামূলক, নিরাপদ, সম্মানজনক ও টেকসই প্রত্যাবাসন।’

মিয়ানমারে জাতিসংঘের আবাসিক ও মানবিক সমন্বয়ক কেনাট অস্টবে জানিয়েছেন, সমস্যার সমাধানে এই চুক্তি একটি বড় পদক্ষেপ।

তিনি বলেন, ‘এখনো অনেক কাজ বাকী। তবে এই পদক্ষেপকে ছোট করে দেখার সুযোগ নেই। আমরা প্রায় সাত লাখ লোকের কথা বলছি, যাদেরকে কেবল ফিরিয়েই নিতে হবে না, তাদের অধিকার ফিরিয়ে দেওয়ার শর্তও মানতে হবে, যার মধ্যে রয়েছে তাদের সামাজিক পরিচয়, নিরাপত্তা এবং কর্মক্ষেত্রের সুবিধা, জীবনধারণ, আবাসন ও অবকাঠামো।

গত বছরের ২৫ আগস্ট রাখাইনে সেনাবাহিনী রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে দমন অভিযান শুরু করে। প্রাণে বাঁচতে এ পর্যন্ত প্রায় সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। জাতিসংঘ ও অন্যান্য মানবাধিকার সংস্থাগুলো রোহিঙ্গা নির্যাতনের এই চিত্রকে ‘জাতিগত নিধন’ বলে উল্লেখ করেছে।

দুই বছরের মধ্যে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনে গত জানুয়ারিতে ঐক্যমতে পৌঁছায় বাংলাদেশ ও মিয়ানমার। তবে পরিকল্পনা বাস্তবায়নে দুই দেশের মধ্যে কিছুটা মতবিরোধ রয়ে গেছে।

গত মাসে মিয়ানমার সরকার পৃথক বিবৃতিতে জানিয়েছে, রাখাইনে ‘মানবাধিকার লঙ্ঘন ও সংশ্লিষ্ট বিষয়ে’ তদন্তের জন্য তারা পৃথক একটি কমিটি করবে্। কমিটিকে সহায়তা করবে আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: